অ্যাধ্যাত্মিক চেতনায় ওম

এই মুহূর্তে পাঁচমিশালী


৩১শে মে, নৈহাটি, রিমা দত্ত : গান বলতে গেলেই সবার আগে রবীন্দ্রসঙ্গীত ও নজরুলের লেখা গান গুলিই সকল বাঙালীদের মাথায় বারে বারে ঘুরপাক খায়। সেইসব গান গুলি সত্যিই অনবদ্য বলার কোনো অবকাশ রাখে না। ভারতীয় পুরান ও বেদ বেদান্তের মতো ত্রিলোকের আধ্যাত্মবাদকে কাজে লাগিয়েও যে নতুন গান তৈরী করা যায়, ‘ওম’ গানের দলটিই একমাত্র তার প্রকৃত নিদর্শন। সম্প্রতি সঙ্গীত পরিচালক অর্কপ্রভ চট্টপাধ্যায়ের দ্বারা পরিচালিত ‘ওম্’ এর নতুন অ্যালবাম “অদ্বৈত” ২৭ শে মে) ২০১৮ তে প্রকাশিত হয় । এবং এই অ্যালবাম _টির সহ পরিচালকের দায়িত্বে ছিলেন অভিজিৎ হালদার, সুদীপ দাস। চিত্র পরিচালকের দায়িত্বে ছিলেন অর্কপ্রভ চট্টোপাধ্যায়, অভিজিৎ হালদার, অঞ্জন মিত্র, আদান সাকিল ফারুক, কিরনজিৎ দাস, শুভম পাল এবং কনসেপ্ট রচনা করেন অর্কপ্রভ চট্টোপাধ্যায়। ও শিল্প নির্দেশনা করেন মনীষ দাস। প্রোডাকশন ম্যানেজারের দায়িত্বে ছিলেন অঞ্জন মিত্র। ও প্রোডাকশন অ্যাসিস্ট্যান্ট_এর দায়িত্বে ছিলেন সম্রাট ভট্টাচার্য, শুভজিৎ বণিক, প্রীতম, কল্যান চক্রবর্ত্তী, কিশোর মাইতি। ভিডিও সংযোজন ও সম্পাদনায় অর্কপ্রভ চট্টপাধ্যায়। ও কালার কারেকশন সুদীপ দাস এবং শব্দগ্রহনের দায়িত্বে ছিলেন শ্রীরুপ চ্যাটার্জী।

অ্যালবামটির ‘অদ্বৈত’ নামের মধ্যে থেকেই আধ্যাত্মিক চিন্তা চেতনার বিষয়টির স্পষ্ট ছাপ রয়েছে। এই অ্যালবাম টির মূল বিষয়বস্তু মৃত্যুর আগে পর্যন্ত মানুষ যাই থাকুক না কেন মৃত্যুর পর সেই মানব বিশ্বলোকের সঙ্গে এক একক এবং ও সরলরৈখিক। ” অদ্বৈত” ছাড়াও পরিচালক অর্কপ্রভ চট্টপাধ্যায়ের ভারতীয় দর্শনশাস্ত্রের উপর আরও দুইটি গান “গণেশ বন্দনা” ও “সতী” পরিচালনা করেন। “অদ্বৈত” অ্যালবামটির লোকেশন হিসাবে পরিচালক তাজপুর বিচ, ও দার্জিলিং কিছুটা অংশকে ব্যাবহার করেছেন। সাক্ষাৎকারে তিনি আমাদের জানান, প্রায় দশবছর ধরে তিনি এই ওম্ গ্রুপের সাথে যুক্ত আছেন। “অ্যামেতি বিশ্ববিদ্যালয়”_এর অধ্যাপনার পাশাপাশি তিনি ছবির পরিচালনার কাজও করে থাকেন। তিনি “ওম্” এর আধ্যাত্মিক চেতনার প্রতি অতন্ত বিশ্বাসী। ভবিষ্যতে তিনি তার এই গানের দলটিকে আরও এগিয়ে নিয়ে যেতে চান।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *